১১ই জুলাই, ২০২০ ইং | ২৭শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | সন্ধ্যা ৭:০৭

যুক্তরাষ্ট্র থেকে শুক্রবার ফিরবেন ৩০০ বাংলাদেশি

ঢাকা অফিস (কৃষি কণ্ঠ অনলাইন সংস্করণ) ।। করোনাভাইরাসের কারণে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে যুক্তরাষ্ট্রে আটকে পড়া বাংলাদেশিদের বিশেষ বিমানে দেশে ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। আগামী ১৫ মে (শুক্রবার) কাতার এয়ারওয়েজের একটি চার্টার্ড ফ্লাইটে তিন শতাধিক প্রবাসী দেশে ফিরবেন।

ওয়াশিংটনে বাংলাদেশ দূতাবাস জানায়, ১৫ মে রাত ১১টায় ওয়াশিংটনের ডুলাস বিমানবন্দর থেকে ফ্লাইটটি বাংলাদেশের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে। দেশে ফেরাদের মধ্যে ছাত্র, পর্যটক ও কাজে গিয়ে আটকে পড়া বাংলাদেশিরা রয়েছেন। এর আগে ১৪ কিংবা ১৫ মে ফ্লাইট পরিচালনার ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল। ১৫ মে তারিখ চূড়ান্ত হয়েছে বলে জানা গেছে।

সম্প্রতি বাংলাদেশ দূতাবাস ওয়াশিংটন ডিসি এবং নিউইয়র্ক ও লস অ্যাঞ্জেলেসের বাংলাদেশ কনস্যুলেট জেনারেলের ওয়েবসাইটে যুক্তরাষ্ট্রে এসে কোভিড-১৯ উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আটকে পড়া বাংলাদেশি নাগরিকদের অবস্থান সংক্রান্ত তথ্য চেয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে তিন শতাধিক বাংলাদেশি নিজ নিজ খরচে বিশেষ ফ্লাইটের মাধ্যমে বাংলাদেশে ফিরে আসার প্রত্যাশায় দূতাবাস ও কনস্যুলেটের মাধ্যমে বাংলাদেশ সরকারের কাছে আবেদন করেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক ওরিক্স অ্যাভিয়েশন লিমিটেড নামের একটি বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান এই চার্টার্ড ফ্লাইটে ভ্রমণেচ্ছু আটকে পড়া যাত্রীদের নিবন্ধন ও টিকিট ইস্যুকরণ-সংক্রান্ত বিষয়ে কাতার এয়ারওয়েজের সঙ্গে সমন্বয় সাধন করছে।

নিউইয়র্কে বাংলাদেশ কনসাল জেনারেল জানিয়েছে, দেশে যারা ফিরছেন, তাদের ঢাকা পৌঁছার পর দুই সপ্তাহ কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। এছাড়া সঙ্গে অবশ্যই করোনা শনাক্ত নয় এমন চিকিৎসা প্রত্যয়নপত্র রাখতে হবে।

দূতাবাস জানায়, ঢাকা বিমানবন্দরে অবতরণের পর সব যাত্রীকে নিয়মমাফিক পুনরায় স্বাস্থ্য পরীক্ষা করাতে হবে এবং বাংলাদেশ সরকারের স্বাস্থ্যবিধি মোতাবেক বাধ্যতামূলকভাবে ২ সপ্তাহ প্রাতিষ্ঠানিক বা হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে।

( সম্পাদনায়:অনলাইন নিউজরুম এডিটর )

%d bloggers like this: